শিরোনাম
চিরিরবন্দরে ন্যায্যমুল্যে দুধ ও ডিম বিক্রির উদ্বোধন সাতক্ষীরায় বন্ধুকে জবাই করে হত্যা; গ্রেপ্তারকৃত সোহাগের আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি জাতীয় গণমাধ্যম সপ্তাহকে রাষ্ট্রীয় স্বীকৃতির দাবীতে প্রধানমন্ত্রী বরাবরে স্মারকলিপি প্রদান টাকা দিয়ে এক বছরেও ঘর মেলেনি ভূমিহীন ফাতেমার মাগুরায় আজ নতুন ১০জন করোনা রোগী শনাক্ত,জেলাতে মোট আক্রান্ত ১১৫৬ বেনাপোল সিমান্তে ইয়াবাসহ চোরাকারবারি আটক কাপ্তাই হ্রদের পানিতে ফুল ভাসিয়ে নতুন বছরকে স্বাগত জানিয়েছে রাঙামাটির পাহাড়ি জনগোষ্ঠী সর্বাত্মক লকডাউনের প্রজ্ঞাপন জারি বাঘা থানার ওসির ব্রেইন টিউমারের অস্ত্র পাচার সম্পূর্ণ আসতে পারে সাধারণ ছুটি!
সোমবার, ১২ এপ্রিল ২০২১, ০৭:১৭ অপরাহ্ন

ময়মনসিংহে লকডাউনে থেমে নেই জেলা প্রশাসন,৩য় দিনেও জরিমানা ৪৭,৩৫০টাকা

আরিফ রববানী, ময়মনসিংহ / ৫৬ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে
প্রকাশের সময় : বৃহস্পতিবার, ৮ এপ্রিল, ২০২১

মহামারী করোনা ভাইরাসের দ্বিতীয় ওয়েভ মোকাবেলায় সরকার ঘোষিত ১৮দফা বাস্তবায়ন ও লকডাউন মানাতে মাঠে ব্যস্ত সময় সময় পার করছেন জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেটগণ। সংক্রমন ঠেকাতে তৃতীয় দিনের অভিযানেও স্বাস্থ্যবিধি না মানা ও সরকারি নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করায় পরিচালিত মোবাইল কোর্টে ১০৫টি মামলায় ৪৭,৩৫০ (সাত চল্লিশ হাজার তিনশত পঞ্চাশ) টাকা জরিমানা আদায় করেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত।

মঙ্গলবার (৭ এপ্রিল) সকাল থেকে বিকাল পর্যন্ত জেলা সদরের প্রদান নগরীসহ বিভিন্ন উপজেলায় জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেটগণ এসব অভিযান পরিচালনা করছেন বলে নিশ্চিত করেছেন ময়মনসিংহের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট আয়েশা হক ।

অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট আয়েশা হক আরো বলেন, মঙ্গলবার (৭এপ্রিল) সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত জেলা ময়মনসিংহ নগরীসহ সবকটি উপজেলার নির্বাহী ম্যাজিষ্টট্রেট ও জেলা প্রশাসনের নির্বাহী এবং এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট গণের নেতৃত্বে করোনার সংক্রমণ ঠেকানোর লক্ষে এসব ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালিত হয়। এসব অভিযানে লকডাউনে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান খোলা রাখা, ম্যাস্ক পরা না থাকা, কারণ ছাড়া বাইরে বের হওয়াসহ বিভিন্ন অভিযোগে ১০৫টি মামলা দায়ের হয়েছে। এসব মামলায় বিভিন্ন পরিমাণে মোট ৪৭,৩৫০ (সাত চল্লিশ হাজার তিনশত পঞ্চাশ) টাকা জরিমানা করা হয়েছে। অভিযান পরিচালনা কালে সাধারণ জনগণের মাঝে মাস্ক বিতরণ করা হয়েছে।

অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট আয়েশা হক বলেন-
করোনা থেকে বাচঁতে স্বাস্থ্যবিধি মেনেই চলতে হবে,এছাড়া কোনো বিকল্প নেই।। তিনি বলেন, করোনা মোকাবেলায় জেলা প্রশাসনের প্রচেষ্টার ঘাটতি নেই। জনগণ সতর্ক থাকলে করোনা মহামারীর সংক্রমণ ও মৃত্যুহার কমানো সম্ভব। এক্ষেত্রে নির্দেশিত স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার কোনো বিকল্প নেই। এটা প্রত্যেক নাগরিক দায়িত্বও বটে। কারণ, ব্যক্তি সুস্থ থাকলে তার পরিবার এবং পরিপার্শ্বও নিরাপদ থাকবে। তাতে ক্রমবর্ধমান সংক্রমণ ঠেকানো সম্ভব হবে। তিনি বলেন, বর্তমানে প্রতিদিন যে হারে নতুন রোগী করোনা আক্রান্ত বলে শনাক্ত হচ্ছেন, যে সংখ্যায় মানুষের মৃত্যু হচ্ছে- এটা দুশ্চিন্তার বিষয়। তিনি বলেন- কোভিড-১৯ একটা মারাত্মক ছোঁয়াচে জীবাণু, তা থেকে সামাজিক বা নিরাপদ দূরত্ব রক্ষা করা সবারই অবশ্যকর্তব্য। এখানে আবেগের প্রশ্রয় দেওয়ার কোনো সুযোগ নেই। আবেগের প্রশ্রয় দেওয়া মানেই হবে বিপদের ঝুঁকি নেওয়া- যা কোনোভাবেই কাম্য নয়। তাই সরকারী নির্দেশনা মোতাবেক জনগণকে রক্ষা করতে আমাদের জেলা প্রশাসক এনামুল হক স্যারের নেতৃত্বে সর্বাত্মক চেষ্টা চালাচ্ছে ময়মনসিংহ জেলা প্রশাসন। এব্যাপারে সকলের সার্বিক সহযোগিতাও প্রত্যাশা করেন তিনি।।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ

বাংলাদেশে কোরোনা

সর্বশেষ (গত ২৪ ঘন্টার রিপোর্ট)
আক্রান্ত
মৃত্যু
সুস্থ
পরীক্ষা
সর্বমোট