মঙ্গলবার, ৩০ নভেম্বর ২০২১, ০৫:৩২ পূর্বাহ্ন

  • বাংলা বাংলা English English
দুটি কিডনি নষ্ট হওয়া প্রকৌশলী হাবীবের চিকিৎসায় এগিয়ে এলেন অনেকেই
ঠাকুরগাঁও থেকে আনোয়ার হোসেন আকাশ / ৭৬ Time View
Update : মঙ্গলবার, ৩০ নভেম্বর ২০২১

ঢাকা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (ডুয়েট) যন্ত্র প্রকৌশল অনুষদে প্রথম হওয়ার ফল প্রকাশের কয়েকদিন পর মেধাবী প্রকৌশলী আহসান হাবীবের দুটো কিডনিই নষ্ট হয়ে গেছে।

মেধাবী ছাত্র আহসান হাবীবকে বাঁচাতে প্রয়োজন ১৫ লাখ টাকা। গণমাধ্যমে এমন শিরোনামে সংবাদ প্রকাশের পর সামাজিক, রাজনৈতিক, শিক্ষকসহ বিভিন্ন ব্যক্তি দুটো কিডনি নষ্ট হওয়া আহসান হাবীবের চিকিৎসায় আরও সাড়ে তিন লাখ টাকা সহযোগিতা করেছেন।

এর আগে হাবীবকে বাঁচাতে সহযোগিতার হাত বাড়িয়েছেন শিক্ষক, রাজনৈতিক, সামাজিক সংগঠন ও সুশীল সমাজের ব্যক্তিবর্গ। গত ২৯ জুলাই সাত লাখ টাকা দিয়ে সহায়তা করা হয়েছিল। এছাড়াও আরো অনেকে তাঁকে সহায়তার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন।

মেধাবী প্রকৌশলী আহসান হাবীব রানীশংকৈল উপজেলার কাশিপুর ইউনিয়নের ঝাপরটলা গ্রামের মাদরাসা শিক্ষক সিরাজুল ইসলামের ছেলে। তিনি ঢাকা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের যন্ত্র প্রকৌশল অনুষদ থেকে ফাস্ট ক্লাশ ফাস্ট হয়েছেন। তিনি ওই বিশ্ববিদ্যালয়ের চাকুরীসহ প্রধানমন্ত্রীর নিকট থেকে স্বর্ণপদক পাওয়ার কথা রয়েছে।

মঙ্গলবার (৩ আগষ্ট) সন্ধ্যায় আহসান হাবীবের গ্রামের বাড়িতে তাঁর কিডনি প্রতিস্থাপনের জন্য দ্বিতীয় দফায় আর্থিক সহায়তা ও দোয়া অনুষ্ঠানের উদ্যোগ নেন স্থানীয় বাসিন্দা ও বালিয়াডাঙ্গী উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা আব্দুর রহমান। ওই অনুষ্ঠানে সময়ের বাতিঘর নামে একটি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন তিন লাখ টাকা এবং রাণীশংকৈল পৌর মেয়র আলহাজ্ব মোস্তাফিজুর রহমান ৫০ হাজার টাকা হাবীবের বাবার হাতে তুলে দেন।

দোয়া অনুষ্ঠানে কাশিপুর ইউনিয়ন আ’লীগের সহ সভাপতি হাফিজুর রহমান বকুলের সভাপতিত্বে রানীশংকৈল উপজেলার সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ সইদুল ইসলাম, পৌরমেয়র আলহাজ্ব মোস্তাফিজুর রহমান, ঠাকুরগাঁও জেলা আ’লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক অধ্যক্ষ মাজহারুল ইসলাম সুজন, কাশিপুর ইউপি চেয়ারম্যান আঃ রউফ, কাশিপুর ইউনিয়ন আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক ফজলুর রহমান, রানীশংকৈলের স্বেচ্ছাসেবী প্রতিষ্ঠান সময়ের বাতিঘরের সভাপতি সোয়েল রানা প্রমুখ এতে বক্তব্য দেন।

বক্তারা বলেন, গণমাধ্যমে সংবাদটি প্রকাশের পর হাবীবের পাশে অনেকেই এসে দাড়িয়েছে। আমরা আশা করছি তাঁর চিকিৎসার জন্য আর কোন ধরণের আর্থিক সংকট হবে না। আপনারা সকলেই দোয়া করবেন হাবীব যেন চিকিৎসা শেষে আমাদের মাঝে ফিরে আসে।

এ সময় বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান শিক্ষক ও এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিসহ সাংবাদিকগণ উপস্থিত ছিলেন।

প্রকৌশলী হাবিবের বাবা সিরাজুল ইসলাম জানান,ঢাকা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (ডুয়েট) আর্থিক সহায়তা করার আশ্বাস দিয়েছেন। এছাড়াও তাঁর বন্ধুমহল একটা ফান্ড সংগ্রহ দেওয়ার চেষ্টা করছে।

সাংবাদিকদের ধন্যবাদ জানিয়ে তাঁর বাবা বলেন, আমার এ দু:সময়ে গণমাধ্যম গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছে।

আহসান হাবীব বর্তমানে ঢাকার মিরপুর-২–এর কিডনি ফাউন্ডেশনে চিকিৎসাধীন। তাঁর চিকিৎসার জন্য সহযোগিতা করতে চাইলে বাবা সিরাজুল ইসলামের বিকাশ/নগদ 01701902424 নম্বরে সহযোগিতা করতে পারেন।

আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
জনপ্রিয় সংবাদ
সর্বশেষ সংবাদ