মঙ্গলবার, ০৪ অক্টোবর ২০২২, ০৩:০৬ পূর্বাহ্ন

  • বাংলা বাংলা English English
কাশ্মিরে ভারতীয় ৯ সেনা নিহত
আন্তর্জাতিক ডেস্ক / ৮২ Time View
Update : মঙ্গলবার, ০৪ অক্টোবর ২০২২

ভারত অধিকৃত জম্মু-কাশ্মিরের পুঞ্চ জেলায় গত ৪৮ ঘণ্টায় সন্ত্রাসবিরোধী অভিযান চালাতে গিয়ে দেশটির সেনাবাহিনীর অন্তত ৯ সদস্যের প্রাণহানি ঘটেছে। শনিবার সন্ধ্যার দিকে পুঞ্চ জেলায় সন্ত্রাসবিরোধী অভিযানে নিখোঁজ দুই সেনা সদস্যের মরদেহ উদ্ধার করেছে দেশটির সেনাবাহিনী।

দেশটির সংবাদমাধ্যম এনডিটিভির এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার দিকে জম্মু-কাশ্মিরের পুঞ্চ জেলায় সন্ত্রাসীদের সঙ্গে ভয়াবহ বন্দুকযুদ্ধের সময় নিখোঁজ হওয়া একজন জুনিয়র কমিশনড অফিসারসহ (জেসিও) দুই সেনা সদস্যের মরদেহ উদ্ধার করেছে সামরিক বাহিনী।

সন্ত্রাসীরা আত্মগোপনে রয়েছেন সন্দেহে ওই এলাকার ভারী বনাঞ্চলে দেশটির সামরিক বাহিনী বড় ধরনের চিরুনি অভিযান শুরু করে। অভিযান শুরুর ৪৮ ঘণ্টা পর সেখান থেকে ওই দুই সেনা সদস্যের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

তাদের মরদেহ উদ্ধারের মধ্য দিয়ে জম্মু-কাশ্মিরের এই জেলায় চলমান সন্ত্রাসবিরোধী অভিযানে সেনাবাহিনীর সদস্যদের প্রাণহানির সংখ্যা বেড়ে ৯ জনে দাঁড়িয়েছে। এনডিটিভি বলছে, জম্মু-কাশ্মিরে একক বন্দুকযুদ্ধে প্রাণহানির এই সংখ্যা সাম্প্রতিক সময়ে সর্বোচ্চ। তবে কাশ্মিরে চলমান এই অভিযানে এখন পর্যন্ত কতজন বেসামরিক এবং সন্ত্রাসীর প্রাণহানি ঘটেছে সে বিষয়ে কিছু জানায়নি ভারতীয় এই সংবাদমাধ্যম।

দেশটির সেনাবাহিনীর সূত্র বলছে, বৃহস্পতিবার পুঞ্চ জেলায় সেনাবাহিনীর সদস্যরা সন্ত্রাসীদের ব্যাপক গুলিবর্ষণের কবলে পড়ার পর থেকে নিখোঁজ ছিলেন ওই জেসিও ও অন্য সেনা সদস্য। একই এলাকায় অভিযানের সময় পাঁচ সেনা সদস্য নিহত হওয়ার চারদিন পর পুঞ্চ-রাজৌরির বনাঞ্চলে যোগাম্বর সিং এবং বিক্রম সিং নেগি নামে আরও দুই সেনার প্রাণহানি ঘটে।

ভারতীয় সেনাবাহিনীর একজন কর্মকর্তা বলেছেন, বৃহস্পতিবার সামরিক বাহিনীর সদস্যরা আক্রান্ত হওয়ার পর থেকে ওই জেসিওর সঙ্গে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়।

শনিবার সকালের দিকেও জম্মু-কাশ্মিরের মেনধরের নার খাস বনাঞ্চলে সন্ত্রাসবিরোধী সামরিক অভিযান শুরু হয়েছে। গভীর বনের ভেতরে আত্মগোপনে যাওয়া সন্ত্রাসীদের উচ্ছেদে শুরু হওয়া এই অভিযানে ব্যাপক গোলাগুলি ও প্রচণ্ড বিস্ফোরণের শব্দ শোনা গেছে।

সন্ত্রাসীদের উপস্থিতির গোপন খবরে গত সোমবার ডেরা কি গালি এলাকায় চিরুনি অভিযান শুরু করে ভারতের সামরিক বাহিনী। অভিযানে সন্ত্রাসীদের সঙ্গে গোলাগুলিতে সামরিক বাহিনীর একজন জেসিও-সহ মোট পাঁচ সৈন্যের প্রাণহানি ঘটে। এ ঘটনার পর ওই এলাকায় সামরিক শক্তি বৃদ্ধি করা হয় এবং তারপর থেকেই ভারতীয় সেনাবাহিনীর অন্যতম দীর্ঘ সন্ত্রাসবিরোধী এই অভিযান এখনও চলছে।

জনসাধারণের নিরাপত্তা বিবেচনা পুঞ্চ-জম্মু মহাসড়ক বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা থেকেই বন্ধ রয়েছে।

আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

More News Of This Category