বুধবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২১, ১২:২১ পূর্বাহ্ন

  • বাংলা বাংলা English English
বাংলাদেশের জিমন্যাস্টিকস দেখতে অলিম্পিক জয়ী মার্গারিতা এখন ঢাকায়
স্পোর্টস ডেস্ক / ৭২ Time View
Update : বুধবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২১

২০১৬ রিও অলিম্পিকে জিমন্যাস্টিক স্বর্ণ জিতেছিলেন রাশিয়ান তরুণী মার্গারিতা মামুন। তিনি রাশিয়ান হলেও তার বাবা বাংলাদেশি। রাজশাহীর পৈতৃক বাড়িতে এসেছেন কয়কবার। এবার বাংলাদেশ জিমনাস্টিক ফেডারেশনের আমন্ত্রণে এসেছেন ঢাকায়।

বাংলাদেশ জিমনাস্টিক ফেডারেশনের সভাপতি শেখ বশির আহমেদ মামুন বলেন, ‘মার্গারিতা মামুন এখন ঢাকায়। টুর্নামেন্টের উদ্বোধনের দিন তিনি থাকবেন। পরের দিনও তিনি খেলা দেখবেন।’ মার্গারিতা মামুন সম্পর্কে তিনি আরো বলেন, ‘তার সঙ্গে আমাদের যোগাযোগ রয়েছে। তাকে এই টুর্নামেন্টে বিশেষ আমন্ত্রণে আনার কারণ হচ্ছে তাকে দেখে যেন আমাদের মেয়েরা উজ্জীবিত হয়। মার্গারিতা মামুন রাশিয়ায় থাকলেও তার শরীরে বাংলাদেশের রক্ত। বাংলাদেশের প্রতি তার টানও রয়েছে।’

২৭ অক্টোবর থেকে শুরু হচ্ছে ৫ম বঙ্গবন্ধু সেন্ট্রাল সাউথ এশিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপ। স্বাগতিক বাংলাদেশ ছাড়া এই প্রতিযোগিতায় অংশ নিচ্ছে ভারত, পাকিস্তান, শ্রীলঙ্কা ও উজবেকিস্তান। আফগানিস্তানের অংশ নেয়ার কথা থাকলেও শেষ পর্যন্ত তারা আসছে না। টুর্নামেন্টের সার্বিক বিষয়ে ফেডারেশনের সভাপতি বলেন, ‘আমরা সাংগঠনিক দিক থেকে সব কিছু প্রস্তুত করেছি। আমাদের দলের প্রস্তুতিও ভালো। মেডেল জিতবই এটা দৃঢ়ভাবে বলছি না। আমরা ভালো কিছু করব।’

৫ম বঙ্গবন্ধু সাউথ সেন্ট্রাল জিমনাস্টিক টুর্নামেন্টের সফল হওয়ার জন্য পৃথক পৃথক ভিডিও বার্তা দিয়েছেন লন্ডন অলিম্পিক খেলা সাইক সিজার ও বাংলাদেশ ফুটবল দলের অধিনায়ক জামাল ভূঁইয়া। লন্ডন প্রবাসী সাইক সিজার এখন আমেরিকার একটি বিশ্ববিদ্যালয়ের কোচ হিসেবে কাজ করছেন। আজ রাজধানীর ঢাকা ক্লাবে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক আহমেদুর রহমান বাবলু সহ বিভিন্ন ফেডারেশনের শীর্ষ কর্মকর্তারা।

২০১১ সালে সর্বশেষ সেন্ট্রাল সাউথ এশিয়ান জিমন্যাস্টিকস হয়েছিল। দশ বছর পর আবার হচ্ছে এই প্রতিযোগিতা। জিমন্যাস্টিকের ভেন্যু সংকট। এবার এই প্রতিযোগিতা হচ্ছে মিরপুরের শহীদ সোহরাওয়ার্দী ইনডোর স্টেডিয়ামে। আজ চ্যাম্পিয়নশিপের লোগো উন্মোচন ও সংবাদ সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী বলেছেন, ‘জিমনিস্ট্যাকিসের জন্য আমরা জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের নিচতলায় একটি অংশ দিয়েছিলাম অনুশীলনের জন্য। সামনে অনেক ইনডোর স্টেডিয়াম হচ্ছে। সেখানে ফেডারেশনের চাহিদা মোতাবেক আমরা ভেন্যু বরাদ্দের ব্যবস্থা করব।’

আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category