বুধবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২১, ০১:১৩ পূর্বাহ্ন

  • বাংলা বাংলা English English
হিমালয়ের আইল্যান্ড পিক জয় শায়লা বিথীর
এবি ডেস্ক রিপোর্ট / ৩৮ Time View
Update : বুধবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২১

দেশের পর্বতারোহী শায়লা বিথী হিমালয়ের আইল্যান্ড পিক জয় করেছেন। তিনি সোমবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে পর্বতটির চূড়ায় পৌঁছান। তিনি কাঠমান্ডু থেকে রওনা দিয়ে ১১ দিনে হিমালয়ের ৬ হাজার ১৬০ মিটার উঁচু এই পর্বতটি জয় করলেন।

এই অভিযানে শায়লা বিথী হিমালয়ের বিখ্যাত ‘থ্রি পাস’ পাড়ি দেন। তিনি গত ৬ নভেম্বর কংমালা পাস, ৪ নভেম্বর চোলা পাস, ২ নভেম্বর রেঞ্জোলা পাস পাড়ি দেন। অভিযানে শায়লা বিথীর সঙ্গে একজন নেপালি শেরপা ও একজন পোর্টার ছিলেন।

শায়লা বিথী গত ২৫ অক্টোবর নেপালের কাঠমান্ডুর উদ্দেশে ঢাকা থেকে যাত্রা করেন। এরপর ২৮ অক্টোবর ভোরে কাঠমান্ডু থেকে বিমানে করে লুকলা গিয়ে পৌঁছেন। লুকলা থেকেই মূলত অভিযাত্রীদের ট্র্যাকিং শুরু হয়। লুকলা নেমে সেখান থেকে ফাকদিন নামের একটি গ্রামে গিয়ে রাত্রিযাপন করেন। পরের দিন তারা নেপালের বিখ্যাত পাহাড়ি শহর নামচে বাজার পৌঁছান। সেখান পরদিন থামে নামের একটি গ্রামে পর্যন্ত পৌঁছান।

৭ নভেম্বর বিকেল ৪টার দিকে আইল্যান্ড পিকের হাই ক্যাম্পে পৌঁছান শায়লা বিথী। সেখান থেকে পরদিন রাত ২টা ২০ মিনিটে পর্বত চূড়ার দিকে যাত্রা শুরু করেন। সকাল ৮টা ৩৫ মিনিটের দিকে চূড়ায় পৌঁছান। পরে সেখান থেকে সফলভাবে নেমে আসেন। এখন তিনি ফেরার পথে রয়েছেন। আগামী ১২ নভেম্বর শায়লা বিথীর কাঠমান্ডুতে পৌঁছানোর কথা রয়েছে। ১৫ নভেম্বর তার ঢাকায় ফেরার কথা রয়েছে।

এ অভিযানে আইল্যান্ড পিকের চূড়ায় বাংলাদেশের জাতীয় পতাকা ও বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতি পৌঁছে দিয়েছেন শায়লা। তিনি ধর্ষণ, সাম্প্রদায়িকতা বিরোধী ও পরিবেশ রক্ষায় নানা বার্তা সম্বলিত প্ল্যাকার্ডও বহন করেন।

গত বছর স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী ও মুজিববর্ষ উপলক্ষে একটি করে ৬, ৭ ও ৮ হাজার মিটার উচু পর্বত অভিযানের ঘোষণা দেন শায়লা বিথী। এ অভিযানের অন্যতম লক্ষ্য পৃথিবীর সর্বোচ্চ স্থান এভারেস্টের চূড়ায় বাংলাদেশের পতাকা ও বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি পৌঁছে দেওয়া। ঢাকা ট্রাভেল অ্যান্ড ট্র্যাকিং ক্লাব এ অভিযানটির সার্বিক বিষয়গুলো তত্ত্বাবধান করছে।

শায়লা বিথী প্রথম পর্বত জয় করেন ২০১৬ সালে। এ বছর তিনি হিমালয়ের ৬ হাজার ৪৭৪ মিটার উঁচু মেরা পিক জয় করেন। এরপর ২০১৮ সালে তিনি তিব্বতের ৭ হাজার ৪৫ মিটার উঁচু লাকপারি পর্বত জয় করেন। ২০১৯ সালে তিনি প্রথম বাংলাদেশি নারী হিসেবে হিমালয়ের দুর্গম তাশি লাপচা পাস অতিক্রম করেন।

এক বিবৃতিতে শায়লা বিথী বলেন, একজন পর্বতারোহী হিসেবে এ দেশের মুক্তিযুদ্ধ ও জাতির জনকের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে আমি এ অভিযানের পরিকল্পনা করি। এ অভিযানে যারা সহযোগিতা করেছেন আমি প্রত্যেকের প্রতি কৃতজ্ঞ।

বিভিন্ন মহলের অভিনন্দন

শায়লা বিথীর আইল্যান্ড পিক জয়ে বিভিন্ন মহল থেকে অভিনন্দন জানানো হয়েছে। মঙ্গলবার এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জাসদ সভাপতি হাসানুল হক ইনু ও সাধারণ সম্পাদক শিরীন আখতার অভিনন্দন জানান। তারা বলেন, পর্বতারোহী শায়লা বিথীর এ অভিযান সাফল্য নারী শক্তির মহান বহিঃপ্রকাশ।

জাতীয় সংসদের হুইপ আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপনও শায়লা বিথীকে অভিনন্দন জানিয়েছেন। আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সদস্য ও সাবেক সংসদ সদস্য সানজিদা খানম, সাবেক ছাত্রলীগ নেতা সাজ্জাদ সাকিব বাদশাসহ বিভিন্ন শ্রেণিপেশার মানুষ শায়লা বিথীকে অভিনন্দন জানিয়েছেন।

আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category