বুধবার, ৩০ নভেম্বর ২০২২, ১২:৪২ অপরাহ্ন

  • বাংলা বাংলা English English
গৃহবধূকে হত্যার পর শরীর থেকে হাত-পা বিচ্ছিন্ন
পাবনা থেকে নিজেস্ব প্রতিনিধ / ১১০ Time View
Update : বুধবার, ৩০ নভেম্বর ২০২২

পাবনায় এক গৃহবধূকে কুপিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে তার স্বামীর বিরুদ্ধে। হত্যার পর তার দেহ থেকে হাত-পা বিচ্ছিন্ন করা হয়। মঙ্গলবার (১৬ নভেম্বর) ভোরে সদর উপজেলার মালিগাছা ইউনিয়নের ফলিয়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত গৃহবধূর নাম হামিদা খাতুন (৩২)। তিনি ওই গ্রামের তেজেম মোল্লার স্ত্রী। তার এক ছেলে ও এক মেয়ে রয়েছে।

নিহতের ভাই হামিদুল ইসলাম বলেন, তেজেম মোল্লা পরকীয়ায় জড়িয়ে পড়েন। তার প্রতিবাদ করেন তার স্ত্রী। এ নিয়ে তাদের মধ্যে প্রায়ই ঝগড়া-বিবাদ লেগে থাকত। তেজেম তার স্ত্রীকে প্রায়ই মারধর করত। এরই জেরে মঙ্গলবার ভোরে হামিদাকে কুপিয়ে হত্যা করে তার এক হাত ও দুই পা শরীর থেকে বিচ্ছিন্ন করে। পরে ফোন দিয়ে আমাকে হত্যার বিষয়টি জানিয়ে পালিয়ে যায়।

পাবনা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আমিনুল ইসলাম বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাবনা জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। পুরো বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category