সোমবার, ১৭ জুন ২০২৪, ০৩:৪৯ পূর্বাহ্ন

ঝালকাঠির মিথিলা এবার বিশ্ব জয় করতে চায়
Reporter Name / ৭৮ Time View
Update : সোমবার, ১৭ জুন ২০২৪
ঝালকাঠির মিথিলা এবার বিশ্ব জয় করতে চায়
ঝালকাঠির মিথিলা এবার বিশ্ব জয় করতে চায়

মোঃরাশেদ খান ঝালকাঠি প্রতিনিধিঃ- অলিম্পিক যুব গেমস ২০২৩-এ দেশের হয়ে স্বর্ণ পদক লুফে নেয়া নারী কারাতেদের আইকন ঝালকাঠির নলছিটির মিথিলা আহমেদ মৌ এবার বিশ্ব জয় করতে চায়।ঝালকাঠির নলছিটি উপজেলার মোল্লারহাট ইউনিয়নের পশ্চিম কামদেবপুর গ্রামের মো: মিলন হোসেন ও শাপলা আক্তারের জেষ্ঠ মেয়ে মিথিলা আহমেদ মৌ।

জানা যায়, সে ২০২২ সালে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ১৩তম জাতীয় কিকবক্সিং চ্যাম্পিয়ানশিপে গোল্ড মেডেল অর্জনের মাধ্যমে যাত্রা শুরু করে। একে একে ঢাকা বিকেএসপিতে অনুষ্ঠিত ইন্টারন্যাশনাল কারাতে প্রতিযোগীতায় গোল্ড মেডেল, ২০২৩ সালের অনুষ্ঠিত অলিম্পিক যুব গেমস কারাতে প্রতিযোগিতায় গোল্ড মেডেলসহ সবশেষ ভিকারুন্নেসা কারাতে প্রতিযোগিতায় একটি গোল্ড মেডেল অর্জন করেন। এছাড়া দুটি ব্রোঞ্জ ও তিনটি সিলভার মেডেল অর্জিত আছে তার ঝুলিতে।

তার সফলতা দেশের গণ্ডি পেরিয়ে বিদেশেও জ্যোতি ছড়াচ্ছে। জিম্বাবুয়ের কারাতে ফেডারেশন চিপ উইলফার্ড মাসায়ার সাথে গত বছরের ২৯ ডিসেম্বর ছবিসহ প্রকাশ করেছে জিম্বাবুয়ের নামকরা পত্রিকা The Herald Sport ও জনপ্রিয় নিউজ চ্যানেল zbc news.

মিথিলা আহমেদ মৌ জানায়, কিশোর কিশোরদের মধ্যে আত্মপ্রত্যয় ও আত্মবিশ্বাস সৃষ্টিতে কারাতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। এই প্রশিক্ষণ গ্রহণ করলে নিজের আত্মরক্ষা নিজথেকে সহজেই করা যায়। শক্রর মোকাবেলা করতেও নারীদের কারাতে প্রশিক্ষণ জরুরি।

মিথিলা আরো জানায়, আমি আমার মায়ের কাছ থেকে কারেতে শেখার অনুপ্রেরণা পেয়েছি। আমি ২০২২ সাল থেকে কারাতে প্রশিক্ষণের সাথে জরিত। ২০২৩ সালের নভেম্বর মাসে কারাতে প্রশিক্ষণের ওপর ব্লাকবেল্ট অর্জন করি। এখন আমার মূল লক্ষ্য অলিম্পিক গেমসে অংশগ্রহণ করে দেশের জন্য স্বর্ণ জয়। আমি ইতোমধ্যে এশিয়া মহাদেশর সাতটি দেশে কারাতে প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করার সুযোগ পেয়েছি। এছাড়া আমি কারাতে প্রশিক্ষণের পাশাপাশি সাভার শুটিং ক্লাবে নিয়মিত শুটিং প্রাকটিস করছি।

এই স্বপ্নবাজ কিশোরী কারাতে ২০০৮ সালের ১৩ আক্টোবর ঝালকাঠি জেলার নলছিটি উপজেলার মোল্লারহাট ইউনিয়নের পশ্চিম কামদেবপুর গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। তার বাবা মো: মিলন হোসেন কুমিল্লার একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে চাকরি করেন। দুই ভাই বোনের মধ্য মিথিলা ছোট। সে এ বছর নলছিটি উপজেলার তালতলা বিজি ইউনিয়ন একাডেমি থেকে এসএসসি পরিক্ষায় অংশগ্রহণ করবে।আর্থিক সহায়তা, উপযুক্ত প্রশিক্ষণ ও যথাযথ পৃষ্ঠপোষকতা পেলে এই কিশোরী বিশ্বের বুকে বাংলাদেশকে এক অনন্য উচ্চতায় নিয়ে যাবে এমনটিই প্রত্যাশা করেছেন এলাকাবাসী।

তালতলা বিজি ইউনিয়ন একাডেমির প্রধান শিক্ষক আলী হায়দার বলেন, আমাদের প্রতিষ্ঠানের এক শিক্ষার্থীর এমন অর্জন আমাদের জন্য গৌরবের। আমার প্রত্যাশা মিথিলা একদিন কারাতে প্রতিযোগিতায় বিশ্ব জয় করবে। ওর জন্য শুভ কামনা রইল।

আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
জনপ্রিয় সংবাদ
সর্বশেষ সংবাদ